শোভন-রাব্বানী কমিটির ৭২ জন অভিযুক্ত! গোয়েন্দা প্রতিবেদন - খবরের অন্তরালে

জাতীয়

সর্বশেষ সংবাদ

Monday, 16 September 2019

শোভন-রাব্বানী কমিটির ৭২ জন অভিযুক্ত! গোয়েন্দা প্রতিবেদন

ছাত্রলীগের ৩০১ সদস্যের কেন্দ্রীয় কমিটির ৭২ জনের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ রয়েছে, মাদকের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ৬ জন, ১৫ জন বিবাহিত, প্রশ্ন ফাঁসের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ রয়েছে এমন একাধিক নেতাও কমিটিতে জায়গা পেয়েছেন। জামাত পরিবারের সন্তান ও গোপনে শিবিরের রাজনীতি করেছেন এরকম কয়েকজন ছাত্রলীগের পদে আছেন। সদ্য পদত্যাগকারী ছাত্রলীগ সেক্রেটারি গোলাম রাব্বানীর জেলা মাদারীপুর থেকে কমিটিতে ঠাঁই হয়েছে ২২ জনের।

ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির সদস্যদের ব্যাপারে একটি গোয়েন্দা সংস্থা বিশেষ প্রতিবেদন তৈরি করে। ওই প্রতিবেদনে এসব তথ্য তুলে ধরা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয় আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের হস্তক্ষেপে উদ্ভূত সংকট নিরসন করা যেতে পারে। সদ্য পদত্যাগকারী ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক শোভন ও সেক্রেটারি গোলাম রাব্বানী চলতি বছরের মে মাসে ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করেন। কমিটি ঘোষণার পরপরই পদবঞ্চিতরা অভিযোগ করেছিলেন কেন্দ্রীয় কমিটিতে অস্ত্র-মাদক হত্যা মামলার আসামি চাকুরীজীবী অবিবাহিতরা স্থান পেয়েছেন। পদ প্রাপ্তদের অনুসারী ও পদবঞ্চিতদের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে একাধিকবার সংঘর্ষ হয়। চাঁদাবাজি কেন্দ্রীয় কমিটিতে বিতর্কিতদের জায়গা দেওয়াসহ নানা অভিযোগ রোববার পথ হারানো ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন ও সেক্রেটারি রাব্বানী।

এ ব্যাপারে ছাত্রলীগের পদবঞ্চিতদের মুখপাত্র ও বিতর্ক ছাত্রলীগ আন্দোলনের নেতা রাকিব হোসেন সমকালকে বলেন গঠনতন্ত্র অনুযায়ী এই কমিটির ১০৫ জন সংগঠনে থাকার যোগ্য নয়। আর্থিক লেনদেন স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে কমিটিতে মাদকাশক্ত জামাত শিবিরের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত বিবাহিত ও অযোগ্যদের স্থান করে দেওয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি নিয়েছেন। তাহলে কেন মাদকাসক্তরা কমিটিতে ঠাঁই পেয়েছে। গোয়েন্দা প্রতিবেদনে বলা হয় ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি তানজিল ভূইয়া তানভীর এর বয়স ৩০ এর বেশি। সহ-সভাপতি রেজাউল করিম এনবিআরে চাকরি করেছেন। সোহান খান প্রশ্ন ফাঁসে জড়িত। আরেফিন সিদ্দিক সুজন মাদক কারবারি জড়িত ও তার পিতা মাদারীপুর জেলার পাঁচখোলা ইউনিয়নে জামাতের আমীর ছিলেন। এছাড়া কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি আতিকুর রহমান খানের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে তিনি মাদকাসক্ত মাদক ও অস্ত্র ব্যবসায় জড়িত এবং রাজনীতিতে অনিয়মিত।

আরেক সহ-সভাপতি বরকত হোসেন হাওলাদার শিক্ষককে হুমকি দেওয়ার অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার হয়েছেন। আবু সালমান প্রধান শাওন মাদকাসক্ত ও রাজনীতিতে নিষ্ক্রিয়। শাহরিয়ার কবির বিদ্যুৎ এর বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি মাদকাসক্ত ও মাদক কারবারি। সহ-সভাপতি ফুয়াদ রহমান খান রাজনীতিতে নিষ্ক্রিয়। সাদিক খান বিবাহিত, মাদকাসক্ত ও রাজনীতিতে নিষ্ক্রিয় তহিদুল ইসলাম চৌধুরী বিএনপি জামাত পরিবারের সন্তান এস এম রফিকুল হাসান সাগরের বাবা যুদ্ধাপরাধী তৌহিদুর রহমান হিমেল ঠিকাদারি ব্যবসার সঙ্গে জড়িত।
মাহমুদুল হাসান জামাত পরিবারের সন্তান শহিদুল ইসলাম রাজনীতিতে নিষ্ক্রিয় চাকরিজীবী সুজন অগ্রণী ব্যাংকে চাকরি তৌহিদুর রহমান আগের ছাত্রলীগের কোন পদে ছিলেন না। কামাল খান কোটাবিরোধী আন্দোলন কারী আরিফ হোসেন পহেলা বৈশাখের অনুষ্ঠানে অগ্নিসংযোগ জড়িত মেডিকেল প্রশ্ন ফাঁসে জড়িত বয়স তিরিশের বেশি। তাঞ্জিদুল ইসলাম শিমুল রাজনীতিতে নিষ্ক্রিয়, রুহুল আমিন সাবেক ছাত্রদল নেতা ও বিবাহিত সোহানী হাসান তিথি বিবাহিত মাহমুদুল হাসান তুষার শিবিরের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত এবং পহেলা বৈশাখের অনুষ্ঠানে অগ্নিসংযোগ করে। এস এম হাসান আটিক বিসিএস এর সুপারিশ প্রাপ্ত অবিবাহিত সুরঞ্জন ঘোষের বয়স তিরিশের বেশি। আরেক সহ-সভাপতি রাকিব উদ্দিন ঠিকাদার ও সোহেল রানার বয়স ৩০ এর বেশি।

খবর সংগৃহীত দৈনিক সমকাল

No comments:

Post a Comment

Home