মুসলিম মা বোনদের প্রকাশ্যে গণধর্ষণ করা উচিত! বিজেপি মহিলা নেত্রী - খবরের অন্তরালে

জাতীয়

সর্বশেষ সংবাদ

Monday, 1 July 2019

মুসলিম মা বোনদের প্রকাশ্যে গণধর্ষণ করা উচিত! বিজেপি মহিলা নেত্রী

ভারতের মুসলমানদের বিরুদ্ধে বক্তব্য দেওয়া ভারতীয় জনতা পার্টি বিজেপি নেতাদের চেয়েও কম যান না দলটির নেত্রীর। এবার মুসলমান নারীদের প্রকাশ্যে গণধর্ষণ করার উস্কানিমূলক বক্তব্য দিয়েছেন হিন্দুত্ববাদী দল ভারতীয় জনতা পার্টি বিজেপির মহিলা মোর্চার এক নেত্রী।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ওই নেত্রীর যখন বিদ্বেষমূলক এ পোস্ট করেন তা সাথে সাথে ভাইরাল হয়ে যায়। পরে অবশ্য দলীয় পদ থেকে সুনিতা সিং গৌর নামের ওই নেত্রীকে সরিয়ে দেওয়া হয়।
পশ্চিমবঙ্গের সংবাদমাধ্যম এই সময় জানায় ফেসবুকে ওই পোষ্টটি দেওয়ার পরপর তা ভাইরাল হয়ে যায়। কড়া সমালোচনা করতে থাকেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীরা। শেষ পর্যন্ত চাপে পড়ে সুনিতাকে বিজেপির দলীয় পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়।
উত্তর প্রদেশের রাম কলার বিজেপি মহিলা মোর্চার নেত্রী সুনিতা ফেসবুকে লেখেন মুসলমানদের জন্য একটা সমাধান রয়েছে হিন্দু ভাইদের 10 জন করে তৈরি করে মুসলিম মা বোনদের প্রকাশ্যে রাস্তায় গণধর্ষণ করা উচিত এরপর সবাইকে দেখানোর জন্য তাদের কে বাজার এর মাঝখানে ঝুলিয়ে দেওয়া উচিত।
এখানে থেমে থাকেননি ওই নেত্রী তিনি আরো বলেন মুসলিম মা-বোনদের উচিত নিজেদের সম্মান লুট করতে দেওয়া কারণ দেশকে রক্ষা করতে এ ছাড়া আর অন্য কোন উপায় নেই।
ফেসবুকে এই স্ট্যাটাসটি দেওয়ার পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে বিজেপি মহিলা মোর্চার কেন্দ্রীয় সভানেত্রী বিজয় রাহাতকর বলেছেন এধরনের মন্তব্য কোনোভাবেই সহ্য করা হবে না।
উল্লেখ্য ধর্মনিরপেক্ষতার বুলি আওড়িয়ে ক্ষমতায় আসেন ভারতীয় জনতা পার্টি বিজেপি এই দলটি ক্ষমতায় আসার পরপরই ভারতের মুসলমানদের উপর নেমে আসে নির্মম নির্যাতন গরুর গোস্ত খাওয়ার অজুহাতে এ পর্যন্ত অনেক মুসলিম কে গণধোলাই দিয়ে হত্যা করা হয় দর্শন করা হয় মুসলিম মা বোনদের। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এক রিপোর্টে বলা হয় ভারতে দিনের পর দিন মুসলমানদের উপর নির্যাতন বেড়ে গিয়েছে।

No comments:

Post a Comment

Home